Header Ads

জুনো স্পেসক্রাফট পাঠিয়েছে বৃহস্পতির ক্লোজআপ চিত্র!

গত মাসের ২৪ তারিখে বৃহস্পতিকে প্রদক্ষিনরত নাসার স্পেসপ্রোব জুনো নবম বারের মত গ্রহটির নিকটতম অবস্থানে আসে । নবম এই ক্লোজ ফ্লাইবাইয়ের সময় জুনো বৃহস্পতির দক্ষিন গোলার্ধের বেশ কয়েকটি ছবি ধারন করে । নিচের এই ছবিটি পাঠানো চিত্রগুলির কম্পোজিট চিত্র , যেখানে ৪০ ডিগ্রি দক্ষিন অক্ষাংশে সাদা ঘূর্ণি দেখা যাচ্ছে । string of pearls নামে খ্যাত বৃহস্পতির ৮ টি পৃথিবীর সমান ঝড়ের মধ্যে এই ঝড়টি অন্যতম । বৃহস্পতির মেঘমণ্ডলের ৩৩১১৫ কিলোমিটার উপর থেকে ধারন করা এই চিত্রের প্রতি পিক্সেল বৃহস্পতির ২২.৩ কিলোমিটার নির্দেশ করছে ।

জুনো স্পেসক্রাফট পাঠিয়েছে বৃহস্পতির ক্লোজআপ চিত্র!

বৃহস্পতির গঠন,উৎপত্তি, বায়ুমণ্ডল ও এর উপগ্রহগুলি পর্যবেক্ষণের জন্য ২০১১ সালের ৫ই আগস্ট ফ্লোরিডা থেকে একে উৎক্ষেপণ করে হয় । প্রায় ৫ বছর পরে গত বছরের ৪ জুলাই এটি বৃহস্পতির কক্ষপথে পৌঁছে । জুনো হল এক রোমান দেবী যিনি শনির কন্যা ও বৃহস্পতির বোন এবং বুধ ও ভলকানের মা । বৃহস্পতি একবার অপরাধকর্ম করলে তার স্ত্রী সহ নিজের মুখমণ্ডলকে একটি পর্দা বা ওড়না দিয়ে ঢেকে ফেলে । তা সত্ত্বেও জুনো তার আসল পরিচয় জানতে পারে ।গ্রহ বৃহস্পতির বিস্তারির জানতে তাই এই প্রোবটির নামকরন জুনো রাখা হয়েছে ।

বাংলাদেশ সময় ২৪ অক্টোবর রাত ১১.১১(ভারত সময় রাত ১০.৪১) টায় চিত্রগুলি ধারন করা হলেও সূর্য,পৃথিবী ও বৃহস্পতির যুগপৎসংঘটন (conjunction) এর জন্য জুনো থেকে তথ্য পৌছায় ৩১ তারিখে । কঞ্জাঙ্কশনের সময় পৃথিবী ও বৃহস্পতির মাঝে সূর্য অবস্থান করে । অর্থাৎ পৃথিবী সাপেক্ষে সূর্যের পিছনে বৃহস্পতি ছিল । এ সময় জুনো থেকে পাঠানো তথ্য বা পৃথিবী থেকে পাঠানো কম্যান্ড সূর্যের নিকট দিয়ে অতিক্রম করার সময় সূর্য থেকে নিক্ষেপিত কনা সিগন্যালের ক্ষতি করে । এতে তথ্য বিভ্রাটের ফলে আসল তথ্যের পরিবর্তন এমনকি কম্যান্ড সিগন্যালের ক্ষতি হয়ে স্পেসক্রাফটের উপর নিয়ন্ত্রন হারানোর সম্ভাবনা থাকে । তাই কঞ্জাঙ্কশনের সময় সময় যেকোনো স্পেসক্র্যাফটের সঙ্গে সাময়িক যোগাযোগ বন্ধ রাখা হয় । এসময় স্পেসক্র্যাফট জ্যোতিষ্ককে একটি নির্দিষ্ট কক্ষপথে প্রদক্ষিন করতে থাকে । জুনো ১ম ক্লোজ ফ্লাইবাইয়ে বৃহস্পতির সবচেয়ে নিকটতম অবস্থানে ছিল । বৃহস্পতির মেঘমন্ডল থেকে এসময় জুনোর দূরত্ব ছিল মাত্র ৩১০০ কিলোমিটার ! আগামি ডিসেম্বরের ১৬ তারিখে জুনো ১০ বারের মত বৃহস্পতির নিকটে যাবে !

তথ্যঃ
https://www.nasa.gov/image-feature/jpl/pia21970/jupiter-s-stunning-southern-hemisphere
http://www.newsweek.com/nasa-releases-treasure-trove-incredible-new-images-jupiter-its-juno-mission-705210
https://en.wikipedia.org/wiki/Juno_(spacecraft)

লেখক পরিচিতি
লিখেছেনঃ জ্যোতির্বিদ্যা ও সৃষ্টিতত্ত্ব পেইজ

লিখাটি ভালো লেগে থাকলে দয়া করে শেয়ার করুন। এমন লিখা নিয়মিত পেতে EduQuarks এর সাথেই থাকুন। সবাইকে অনেক অনেক ধন্যবাদ।

No comments: